আইফতোয়াতে ওয়াসওয়াসা সংক্রান্ত প্রশ্নের উত্তর দেওয়া হবে না। ওয়াসওয়াসায় আক্রান্ত ব্যক্তির চিকিৎসা ও করণীয় সম্পর্কে জানতে এখানে ক্লিক করুন

0 votes
65 views
in বিবিধ মাস’আলা (Miscellaneous Fiqh) by (29 points)

১. নামাজে মুক্তাদি'র নিজের ভূলের জন্য সাহু সিজদাহ দেয়ার নিয়ম কি? এক্ষেত্রে কি ইমামের সাথে সালাম না ফিরাবে নাকি না ফিরিয়ে সাহু সিজদাহ দিবে?


২. মসজিদের মূল জামাতে অংশগ্রহণ করতে পারে নি এমন কয়েকজন যদি পরে মসজিদে নিজেরা জামাত করে তাহলে কি একামত দিবে নাকি দিবে না?


৩. টরে নামের এক ধরণের পাঞ্জাবীর কাপড় আছে যেগুলো অনেক পাতলা এবং কিছুটা সিল্ক এর মতো মনে হয়। এগুলোতে কি সিল্ক (রেশম) ব্যবহার হয়? যদিও অনেক আলেম ও হুজুররা এ কাপড় পরে থাকেন।


৪. অগ্রিম যাকাত দেয়ার বিধান কি? কারো কাছে যাকাতের নিসাব পরিমাণ সম্পদ বর্তমানে নেই। তবে কিছুদিন পর বেতন পেলে তা নিসাব পরিমাণ হবে। এ রকম অবস্থায় যদি কোন অসহায় ব্যক্তির প্রয়োজনে যাকাতের টাকা অগ্রিম দিয়ে দেয় সেটা কি জায়েজ হবে? আবার অনেক সময় দেখা যায় বছর পূর্তির আগে যাকাতের নিসাব পরিমাণ সম্পদ থাকে কিন্তু বছর পূর্ণ হতে হতে তা খরচ হয়ে যাবে এমন অবস্থা হয়। এক্ষেত্রে কি অগ্রিম যাকাত দেয়া যাবে?


৫. অমুসলিমদের কাছ থেকে কোন অসচ্ছল ব্যক্তির চিকিৎসার জন্য সাহায্য চাওয়ার বিধান কি? 

1 Answer

0 votes
by (671,200 points)
edited by
জবাবঃ-
بسم الله الرحمن الرحيم


(০১)
https://ifatwa.info/49874/ নং ফতোয়াতে উল্লেখ রয়েছে, 
হাদীস শরীফে এসেছেঃ  

حَدَّثَنَا عَلِيُّ بْنُ الْحَسَنِ بْنِ هَارُونَ بْنِ رُسْتُمَ السَّقَطِيُّ ، ثَنَا مُحَمَّدُ بْنُ سَعِيدٍ أَبُو يَحْيَى الْعَطَّارُ ، ثَنَا شَبَابَةُ ، ثَنَا خَارِجَةُ بْنُ مُصْعَبٍ عَنْ أَبِي الْحُسَيْنِ الْمَدِينِيِّ عَنْ سَالِمِ بْنِ عَبْدِ اللَّهِ بْنِ عُمَرَ عَنْ أَبِيهِ عَنْ عُمَرَ عَنِ النَّبِيِّ - صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ - قَالَ : " لَيْسَ عَلَى مَنْ خَلْفَ الْإِمَامِ سَهْوٌ ، فَإِنْ سَهَا الْإِمَامُ فَعَلَيْهِ وَعَلَى مَنْ خَلْفَهُ السَّهْوُ ، وَإِنْ سَهَا مَنْ خَلْفَ الْإِمَامِ فَلَيْسَ عَلَيْهِ سَهْوٌ والْإِمَامُ كَافِيهِ 

আলী ইবনুল হাসান ইবনে হারূন ইবনে রুসতাম আস-সাকাতী (রহঃ) ... উমার (রাঃ) থেকে বর্ণিত। নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেন, যে ব্যক্তি ইমামের পিছনে নামায পড়ে তার উপর সাহু সিজদা নেই। ইমাম ভুল করলে ইমাম ও মোকতাদী উভয়কে সাহু সিজদা করতে হবে। মোকতাদী ভুল করলে তার জন্য সাহু সিজদা নেই, ইমামই তার জন্য যথেষ্ট।
(সুনানে দারা কুতনি ১৩৮৩,বাইহাকী ২/৩৫২)

বিখ্যাত তাবেয়ি ইবরাহিম নাখায়ি (রহ.) বলেন, ‘তুমি যদি ইমামের পেছনে ভুল কর, কিন্তু ইমাম কোনো ভুল না করে, তা হলে তোমার ওপর সাহু সিজদা নেই। আর ইমাম ভুল করলে তোমার ভুল না হলেও ইমামের সঙ্গে তোমাকে সাহু সিজদা করতে হবে।’ 
(কিতাবুল আসার, ইমাম আবু ইউসুফ, বর্ণনা : ১৮৭)
,
★শরীয়তের বিধান হলো মুক্তাদীর এমন ভুল যার দ্বারা নামায ভঙ্গ হয় না, এমন কোন কাজ ইমামের পিছনে মুক্তাদী করলে এতে মুক্তাদীর উপর কোন কিছু যথা সাহু সেজদা আবশ্যক হয় না। বরং তার নামায বিশুদ্ধ হয়ে যায়।
,
 
فَأَمَّا الْمُقْتَدِي إذَا سَهَا فِي صَلَاتِهِ فَلَا سَهْوَ عَلَيْهِ؛ لِأَنَّهُ لَا يُمْكِنُهُ السُّجُودُ؛ لِأَنَّهُ إنْ سَجَدَ قَبْلَ السَّلَامِ كَانَ مُخَالِفًا لِلْإِمَامِ، وَإِنْ أَخَّرَهُ إلَى مَا بَعْدَ سَلَامِ الْإِمَامِ يَخْرُجُ مِنْ الصَّلَاةِ بِسَلَامِ الْإِمَامِ؛ لِأَنَّهُ سَلَامُ عَمْدٍ مِمَّنْ لَا سَهْوَ عَلَيْهِ، فَكَانَ سَهْوُهُ فِيمَا يَرْجِعُ إلَى السُّجُودِ مُلْحَقًا بِالْعَدَمِ لِتَعَذُّرِ السُّجُودِ عَلَيْهِ، فَسَقَطَ السُّجُودُ عَنْهُ أَصْلًا، (بدائع الصنائع، كتاب الصلاة، فصل وَأَمَّا بَيَانُ مَنْ يَجِبُ عَلَيْهِ سُجُودُ السَّهْوِ وَمَنْ لَا يَجِبُ عَلَيْهِ-1/175، الفتاوى الهندية-1/128، رد المحتار-2/82)
সারমর্মঃ
যদি মুক্তাদি নামাজের ভিতর কোনো ভুল করে,তাহলে তার উপর সেজদায়ে সাহু আবশ্যক হবেনা।
কেননা তার জন্য সেজদায়ে সাহু আদায় করার কোনো ইমকান, সুযোগ নেই।    
কেননা যদি সে ইমামের সালামের আগেই সালাম ফিরায়,তাহলে ইমের মুখালিফ তথা বিরোধিতা হলো।
যদি ইমামের সাথে সালাম ফিরানোর পর সেজদায়ে সাহু আদায় করে,তাহলে সে তো ইমামের সাথে নামাজ থেকে বের হয়ে গিয়েছে,,,,,  
,
আরো জানুনঃ- 

প্রিয় প্রশ্নকারী দ্বীনি ভাই,
প্রশ্নে উল্লেখিত ছুরতে মুক্তাদীর সেজদায়ে সাহু আদায় করতে হবেনা। তার নামাজ বিশুদ্ধ হয়ে যাবে।

(০২)
যেসব মসজিদের ইমাম-মুয়াজ্জিন নির্ধারিত নেই, সেখানে প্রতিটি জামাতেই ইকামত দেবে। আর যেসব মসজিদের নির্ধারিত ইমাম-মুয়াজ্জিন আছে, সেখানে দ্বিতীয় জামাত করা মাকরুহ। তবুও কেউ যদি দ্বিতীয় জামাত করে, তখন ইকামত দেবে না। (আপকে মাসায়েল আউর উনকা হল: ৩/৩১৪, আহসানুল ফতোয়া: ১০/২৯৩)

★সুতরাং প্রশ্নে উল্লেখিত ছুরতে ইকামত দিবেনা।

 হাদীস শরীফে এসেছেঃ- 

عَنْ عَبْدِ الرَّحْمَنِ بْنِ أَبِي بَكْرَةَ، عَنْ أَبِيهِ: أَنَّ رَسُولَ اللَّهِ صَلَّى اللهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ «أَقْبَلَ مِنْ نَوَاحِي الْمَدِينَةِ يُرِيدُ الصَّلَاةَ، فَوَجَدَ النَّاسَ قَدْ صَلَّوْا، فَمَالَ إِلَى مَنْزِلِهِ، فَجَمَعَ أَهْلَهَ، فَصَلَّى بِهِمْ» (المعجم الأوسط، رقم الحديث-4601،

হযরত আব্দুর রহমান বিন আবী বাকরা তার পিতা থেকে বর্ণনা করেন। রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম একদা মদীনার কোন এলাকা থেকে নামাযের উদ্দেশ্যে আগমন করলেন। এসে দেখেন সাহাবাগণ নামায আদায় করে ফেলেছেন। তখন তিনি তার বাড়ীতে চলে গেলেন। তারপর পরিবারের লোকদের একত্র করলেন এবং তাদের নিয়ে জামাতে নামায পড়লেন। [আলমু’জামুল আওসাত, তাবরানীকৃত, হাদীস নং-৪৬০১, ৬৮২০]

(০৩)
জানা মতে এগুলোতে সিল্ক (রেশম) ব্যবহার হয়না।

(০৪)
অগ্রিম যাকাত দেয়া যাবে।
তবে এক্ষেত্রে যেদিন তার বছর পূর্ণ হবে,সেদিন পূর্বের প্রদানকৃত যাকাতের সম্পদ হতে আরো সম্পদ বেশি হলে সেই অতিরিক্ত সম্পদেরও হিসাব করে যাকাত দিতে হবে।

বিস্তারিত জানুনঃ- 

(০৫)
জায়েজ আছে।


(আল্লাহ-ই ভালো জানেন)

------------------------
মুফতী ওলি উল্লাহ
ইফতা বিভাগ
Islamic Online Madrasah(IOM)

আই ফতোয়া  ওয়েবসাইট বাংলাদেশের অন্যতম একটি নির্ভরযোগ্য ফতোয়া বিষয়ক সাইট। যেটি IOM এর ইফতা বিভাগ দ্বারা পরিচালিত।  যেকোন প্রশ্ন করার আগে আপনার প্রশ্নটি সার্চ বক্সে লিখে সার্চ করে দেখুন। উত্তর না পেলে প্রশ্ন করতে পারেন। আপনি প্রতিমাসে সর্বোচ্চ ৪ টি প্রশ্ন করতে পারবেন। এই প্রশ্ন ও উত্তরগুলো আমাদের ফেসবুকেও শেয়ার করা হবে। তাই প্রশ্ন করার সময় সুন্দর ও সাবলীল ভাষা ব্যবহার করুন।

বি.দ্র: প্রশ্ন করা ও ইলম অর্জনের সবচেয়ে ভালো মাধ্যম হলো সরাসরি মুফতি সাহেবের কাছে গিয়ে প্রশ্ন করা যেখানে প্রশ্নকারীর প্রশ্ন বিস্তারিত জানার ও বোঝার সুযোগ থাকে। যাদের এই ধরণের সুযোগ কম তাদের জন্য এই সাইট। প্রশ্নকারীর প্রশ্নের অস্পষ্টতার কারনে ও কিছু বিষয়ে কোরআন ও হাদীসের একাধিক বর্ণনার কারনে অনেক সময় কিছু উত্তরে ভিন্নতা আসতে পারে। তাই কোনো বড় সিদ্ধান্ত এই সাইটের উপর ভিত্তি করে না নিয়ে বরং সরাসরি স্থানীয় মুফতি সাহেবদের সাথে যোগাযোগ করতে হবে।

Related questions

...